189266_185

নেপালে মোটর সাইকেল রফতানি শুরু করেছে দেশীয় প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান রানার অটোমোবাইলস লিমিটেড। রানার ব্র্যান্ডের ২০০ মোটরসাইকেল রফতানির মধ্য দিয়ে আন্তর্জাতিক বাজারে প্রবেশ করলো এই প্রতিষ্ঠানটি। শনিবার দুপুরে রফতানি কার্যক্রম আনুষ্ঠানিকভাবে উদ্বোধন করেন বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ এমপি।

এসময় সাবেক স্বাস্থ্য উপমন্ত্রী ডা. এম আমানউল্লাহ এমপি, রানার অটোমোবাইলসের চেয়ারম্যান হাফিজুর রহমান খান, ভাইস চেয়ারম্যান মো. মোজাম্মেল হোসেন, ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও সিইও মুকেশ শর্মা, নেপালের চার্জ দ্যা অ্যাফেয়ার্স মি. বাহাদুর অলি, আমদানিকারক প্রতিষ্ঠান মেট্রিক্স মোটো করপোরেশনের দিলিপ কার্না, প্রধানমন্ত্রীর সহকারী একান্ত সচিব সাইফুজ্জামান শেখর, পুলিশ সুপার সৈয়দ নুরুল ইসলাম, কোম্পানির পরিচালক ও উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ বলেন, ‘নেপালে রানার মোটরসাইকেল রফতানি দেশের ইতিহাসে ‘মাইলফলক’ হয়ে থাকবে।’

রানার অটোমোবাইলসের চেয়ারম্যান হাফিজুর রহমান খান বলেন, ‘রানার মোটরসাইকেল বিদেশের মাটিতে বাংলাদেশের পতাকা নিয়ে ঘুরে বেড়াবে। রানার প্রতিদিন ৫০০ মোটরসাইকেল উৎপাদন করছে। ২০১৮ সালের মধ্যে দৈনিক উৎপাদন ১০০০-এ উন্নীতকরণের কার্যক্রম চলছে।’

রফতানিকারক বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের সুরক্ষার জন্য দীর্ঘমেয়াদী ‘নীতিমালা’ প্রণয়নের দাবিও জানান তিনি।

 

উল্লেখ্য, ২০০০ সালে মোটরসাইকেল আমদানি করে বাজারজাত শুরু করে রানার অটোমোবাইলস। ২০০৭ সালে ময়মনসিংহের ভালুকায় রানার প্রথম মোটরসাইকেল উৎপাদন শুরু করে।

নিচের বাটনগুলোর সাহায্যে আপনার পছন্দের সামাজিক মাধ্যমগুলোতে বন্ধুদের সাথে খবরটি শেয়ার করুন

...+